তাইওয়ান ও হংকংয়ে আগুন নিয়ে খেলছে আমেরিকা: চীন


চীন হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছে, বারবার নিষেধ করা সত্ত্বেও মার্কিন সরকার তার আরেকজন কর্মকর্তাকে তাইওয়ান সফরে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়ে ‘আগুন নিয়ে খেলা শুরু করেছে।’ জাতিসংঘে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত কেলি ক্র্যাফ্ট আগামী সপ্তাহে দু’দিনের সফরে চীনের স্বায়ত্বশাসিত দ্বীপ তাইওয়ান সফরে যাবেন বলে জাতিসংঘে আমেরিকার দপ্তর ঘোষণা করেছে। ওই দপ্তর বলেছে, আসন্ন সফরে মার্কিন রাষ্ট্রদূত আন্তর্জাতিক অঙ্গনে তাইওয়ানের উপস্থিতির প্রতি মার্কিন সরকারের শক্ত সমর্থন ঘোষণা করবেন।

জাতিসংঘে চীনা মিশন ক্র্যাফ্টের পরিকল্পিত এই সফরের প্রতিক্রিয়ায় সতর্ক করে দিয়ে আরো বলেছে, “যারা আগুন নিয়ে খেলা করছে তারা নিজেরাই এই আগুনে পুড়ে মরবে।” এক বিবৃতিতে চীনা মিশন বলেছে, “এই ভুল পদক্ষেপের জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে চড়া মূল্য দিতে হবে।” এ ধরনের ‘উন্মাদনাপূর্ণ উসকানি’ বন্ধ করতে আমেরিকার প্রতি আহ্বান জানিয়ে চীনা মিশন বলেছে, এসব আচরণ বন্ধ না করলে তা ওয়াশিংটন-বেইজিং সম্পর্কের ওপর মারাত্মক নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে।

আমেরিকা এমন সময় তাইওয়ানে তার শীর্ষস্থানীয় কূটনীতিককে পাঠাচ্ছে যখন স্বশাসিত এই দ্বীপটি কোনো রাষ্ট্র নয় এবং জাতিসংঘেও তার কোনো সদস্যপদ নেই। তাইওয়ানের উপর চীনের পূর্ণ সার্বভৌমত্ব রয়েছে এবং এ বিষয়টি আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত। তাইওয়ানের ভিন্ন মতাবলম্বী প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েন অবশ্য এই দ্বীপের স্বাধীনতার দাবি জানিয়ে আসছেন।

এই রকম আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published.